×
ঠাকুরগাঁও জেলার উল্লেখযোগ্য দর্শনীয় স্থান

ফানসিটি বিনোদন ও শিশু পার্ক সনগাঁ শাহী মসজিদ মেদিনীসাগর জামে মসজিদ গেদুড়া মসজিদ গোরক্ষনাথ মন্দির কূপ ও শিলালিপি হরিণমারী শিব মন্দির হরিপুর রাজবাড়ি শিব মন্দির গোবিন্দনগর মন্দির জগদল বিরেন্দ্র নাথ চৌধুরীর পরিত্যাক্ত রাজবাড়ি রামরাই (রাণীসাগর) খুনিয়া দিঘী স্মৃতি সৌধ রাণীশংকৈল (রাজা টংকনাথের) জমিদার বাড়ী হরিপুর জমিদার বাড়ী রাণী সাগর গোরক্ষনাথ মন্দির রাজভিটা রাজা টংকনাথের রাজবাড়ি হরিপুর রাজবাড়ি জগদল রাজবাড়ি মহালবাড়ি মসজিদ জামালপুর জমিদারবাড়ি জামে মসজিদ শালবাড়ি মসজিদ ও ইমামবাড়া ঢোলরহাট মন্দির মালদুয়ার দুর্গ গড়গ্রাম দুর্গ বাংলা গড় গড় ভবানীপুর গড়খাঁড়ি দুর্গ কোরমখান গড় সাপটি বুরুজ পীর নাছিরউদ্দীন শাহ্ এর মাজার শরীফ। গোরকই মন্দির ছোট রাণীদিঘী শ্রী শ্রী গঙ্গা স্নান মন্দির রনশিয়া চন্দ্রা ও দানাজপুর বর্ডার বলাকা উদ্যান বা কুমিল্লা হাড়ি বিনোদন কেন্দ্র ও পিকনিক স্পট
☰ ঠাকুরগাঁও জেলার উল্লেখযোগ্য দর্শনীয় স্থান
রাণীশংকৈল (রাজা টংকনাথের) জমিদার বাড়ী

পরিচিতি

রানীশংকৈল  উপজেলার পূর্বপ্রান্তে কুলিক নদীর তীরে মালদুয়ার জমিদার রাজা টংকনাথের রাজবাড়ি। টংকনাথের পিতার নাম বুদ্ধিনাথ চৌধুরী। তিনি ছিলেন মৈথিলি ব্রাহ্মণ এবং কাতিহারে ঘোষ বা গোয়ালা বংশীয় জমিদারের শ্যামরাই মন্দিরের সেবায়েত। বৃদ্ধ জমিদার ফিরে না আসার কারণে বুদ্ধিনাথ চৌধুরী জমিদারি পেয়ে যান। তবে অনেকে মনে করেন এই ঘটনা বুদ্ধিনাথের দু এক পুরুষ পূর্বেরও হতে পারে। ঊনবিংশ শতাব্দীর শেষভাগে রাজবাড়িটি নির্মিত হয়। বর্তমানে রাজবাড়িটির অনেক অংশই নষ্ট হয়ে গেছে।


অবস্থান ও যাতায়াত

রাণীশংকৈল উপজেলা সদর থেকে ১ কি:মি: দূরে অবস্থিত


Total Site Views: 848292 | Online: 9